রাহানেদের হারিয়ে এক নম্বরে নাইট রাইডার্স

বিডিমেট্রোনিউজ ডেস্ক ॥ কলকাতার হাতে ঘরের মাঠে বিধ্বস্ত হতে হল রাজস্থান রয়্যালসকে৷ মূলত কেকেআর স্পিনারদের সামনে মি়ডল অর্ডার ব্যাটসম্যানদের অসহায়তার মাশুল দিতে হল রাজস্থানকে৷

টসে জিতে কেকেআর অধিনায়ক দীনেশ কার্তিক প্রথমে ব্যাট করার আমন্ত্রণ জানান রাজস্থানকে৷ পীযুষ চাওলাকে দিয়ে বোলিং আক্রমণ শুরু করানোর নাইটদের পরিকল্পনা সফল প্রমাণিত হয়৷ একা চাওলাকেই নয়, পিচের সম্ভাব্য গতিপ্রকৃতি আন্দাজ করে পর পর তিনজন স্পিনারকে আক্রমণে আনেন কার্তিক৷ সুনীল নারিন খরুচে প্রমাণিত হলেও চাওলা ও কুলদীপ দুরন্ত বোলিং করেন৷

রাজস্থানের হয়ে দুই ওপেনার ইনিংসের শুরুটা মন্দ করেননি৷ তবে ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে না পারায় ক্রিজে যাওয়া-আসা শুরু হয় রাজস্থান ব্যাটস্যামনদের৷ অজিঙ্কা রাহানে ১৯ বলে ৩৬ রান করে নীতিশ রানার বলে আউট হন৷ তিনি ৫টি চার ও একটি ছক্কা মারেন৷

অপর ওপেনার ডার্সি শর্ট ৪৩ বলে ৪৪ রান করে রানার বলেই বোল্ড হন৷ তিনিও পাঁচটি চার ও একটি ছক্কা মেরেছেন৷ তিন নম্বরে ব্যাট করতে নামা সঞ্জু স্যামসন মাত্র ৭ রান করে ক্রিজ ছাড়েন৷ বড় রানের মুখ দেখেননি রাহুল ত্রিপাঠী (১৫), বেন স্টোকস (১৪), কৃষ্ণাপ্পা গৌতম (১২), শ্রেয়স গোপাল (০), ধবল কুলকার্নিরা (৩)৷ ২৪ রান করে অপরাজিত থাকেন জোস বাটলার৷ রাজস্থান ২০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৬০ রান তোলে৷

নাইটদের হয়ে নীতিশ রানা ও টম কুরান দু’টি করে উইকেট পেয়েছেন৷ একটি করে উইকেট তুলেছেন চাওলা, কুলদীপ ও শিবম মাভি৷

পাল্টা ব্যাট করতে নেমে কলকাতা শুরুতেই ক্রিস লিনের উইকেট হারিয়ে বসে৷ রবীন উথাপ্পাকে সঙ্গে নিয়ে কলকাতাকে জয়ের ভিতে বসিয়ে দেন নারিন৷ দ্বিতীয় উইকেটের জুটিতে ৬৯ রান যোগ করেন দু’জনে৷ নারিন ২৫ বলে ৩৫ ও উথাপ্পা ৩৬ বলে ৪৮ রান করে আউট হন৷ নীতিশ রানাকে সঙ্গে নিয়ে দলনায়ক কার্তিক ১ ওভার ১ বল বাকি থাকতেই দলের জয় নিশ্চিত করেন৷ ১৮.৫ ওভারে ৩ উইকেটের বিনিময়ে ১৬৩ রান তুলে ম্যাচ জিতে যায় কলকাতা৷ রানা ২৭ বলে ৩৫ ও কার্তিক ২৩ বলে ৪২ রান করে অপরাজিত থাকেন৷ সাত উইকেটে ম্যাচ জিতে আপাতত পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে উঠে আসে কলকাতা৷

ব্যাটে-বলে সফল নীতিশ রানা ম্যাচের সেরা ক্রিকেটার নির্বাচিত হয়েছেন৷

Print Friendly
User Rating: 5.0 (1 votes)
Sending