শ্রীলঙ্কার বিদায়, সুপার ফোরে বাংলাদেশ

বিডিমেট্রোনিউজ ডেস্ক ॥ আফগানিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচটি শ্রীলঙ্কার জন্য ছিল বাঁচা-মরার। আসরে টিকে থাকার জন্য জিততেই হতো তাদের। না, তা পারেনি সাবেক বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা। টেস্ট ক্রিকেটে নবীন সদস্য দেশটির কাছে ৯১ রানের বিশাল ব্যবধানে হেরে আসর থেকে ছিটকে পড়েছে তারা।

শ্রীলঙ্কার এই হারে সুবিধা হয়েছে বাংলাদেশের। এক ম্যাচ হাতে রেখেই এশিয়া কাপের শেষ চারে খেলা নিশ্চিত করেছে লাল-সবুজের দল। তাদের সঙ্গে আফগানিস্তানও উঠে গেছে সুপার ফোরে।

সোমবার আবুধাবির শেখ জয়েদ স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ম্যাচে আফগানিস্তান প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ২৪৯ রানের চ্যালেঞ্জিং সংগ্রহ দাঁড় করায়। জবাবে শ্রীলঙ্কার ইনিংস থেমে যায় ১৫৮ রানে।

আফগানিস্তানের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে সামনে শ্রীলঙ্কার ব্যাটসম্যানরা শুরু থেকেই ছিল নড়বড়ে। দলের ঝুলিতে কোনো রান যোগ না হওয়ার আগেই ওপেনার কুশল মেন্ডিসের উইকেট হারিয়ে বসে তারা। দু’একজন ব্যাটসম্যানের কথা বাদ দিলে সে ধারাবাহিকতা ছিল পুরো ইনিংসেই।

লঙ্কানদের হয়ে সর্বোচ্চ সংগ্রহ থারাঙ্গার, ৩৬ রান। আর পেরেরার ২৮ রান দ্বিতীয় সর্বোচ্চ।

মুজিব-উর রহমান, মোহাম্মদ নবী ও রশিদ খানদের গড়া আফগান স্পিন আক্রমণেই মূলত বিধ্বস্ত হয়েছে শ্রীলঙ্কার ব্যাটিং। তিনজনেই দুটি করে উইকেট নেন। পেসার গুলবাদীন নাঈবও পান দুটি উইকেট।

এর আগে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে আফগানিস্তান এই চ্যালেঞ্জিং সংগ্রহ দাঁড় করায় দুই ওপেনার মোহাম্মদ শাহজাদ ও এহসানউল্লাহর কল্যানে। দুজনে ৫৭ রানের জুটি গড়ে দলের প্রাথমিক ভীত গড়ে দেন।

শাহজাদ ৩৪ ও এহসানউল্লাহ ৪৫ রান করে সাজঘরে ফিরলেও এই উদ্বোধনী জুটির ভীতের ওপর দাঁড়িয়ে মিডেল অর্ডার ব্যাটসম্যানরাও দারুণ খেলেন। বিশেষ করে রহমত শাহ ও হাসমতুল্লাহ শহীদী দারুণ দুটি ইনিংস খেলে ইনিংসটাকে ভালো জায়গায় নিতে দারুণ ভূমিকা রাখেন।

রহমত ৯০ বলে ৭২ রানের চমৎকার একটি ইনিংস খেলেন। তাঁকে যোগ্য সহায়তা দিয়ে হাসমতুল্লাহ করেন ৩৭ রান। শেষ দিকে রশিদ খান ৬ বলে ১৩ রানের একটা ইনিংস খেলেন।

তবে শ্রীলঙ্কার জন্য এই ম্যাচটি বাঁচা-মরার। আগের ম্যাচে বাংলাদেশের কাছে খুবই বাজেভাবে হেরেছে তারা। আফগানিস্তানের বিপক্ষে এই ম্যাচে হারলে আসর থেকে ছিটকে পড়বে তারা।

এর আগে প্রথম ম্যাচে বাংলাদেশ শ্রীলঙ্কাকে ১৩৭ রানের বিশাল ব্যবধানে হারিয়েছিল। মুশফিকুর রহিমের (১৪৪) অসাধারণ সেঞ্চুরিতে বাংলাদেশের করা ২৬১ রানের জবাবে শ্রীলঙ্কার ইনিংস থেমে যায় মাত্র ১২৪ রানে।

Print Friendly
User Rating: 0.0 (0 votes)
Sending