বইমেলায় রণজিৎ সরকারের নতুন ছয়টি বই

বিডিমেট্রোনিউজ ডেস্ক ॥ এবারের একুশে বইমেলায় কথাসাহিত্যিক রণজিৎ সরকারের ছয়টি বই এসেছে। ছয়টি বইয়ের বিষয় ভিন্ন ভিন্ন। অধ্যয়ন থেকে এসেছে পঞ্চাশ বর্ণমালা দিয়ে পঞ্চাশটি গল্প লেখা হয়েছে ইতিহাস-ঐতিহ্য নিয়ে। এতে শিশু-কিশোরা বর্ণমালা ও অলংকরণ দেখে অনেক কিছু জানতে পারবে। বইটি মেলায় পাওয়া যাচ্ছে তাম্রলিপির ১৪ নং প্যাভিলিয়নে। বইটির মূল্য ২০০ টাকা। প্রচ্ছদ : নিয়াজ চৌধুরী তুলি। অলংকরণ করেছেন শাহীনুর আলম শাহীন।

বাবুই থেকে এসেছে পরির সাথে দেশ ঘুরি। গল্পটি রঙিন। বাংলাদেশের ৬৪ জেলার বিখ্যাত জায়গাগুলো গল্পে গল্পে বর্ণনা করা হয়েছে। শিশু কিশোরা পড়লে তারা দেশের জায়গাগুলো দেখের ইচ্ছা হবে। এবং ওই জায়গাগুলো সম্পর্কে জানতে পারবে অনেক কিছু। বইটি মেলায় পাওয়া যাবে শিশু চত্বরের বাবুই-এর ৬৪৫ নম্বর স্টলে। বইটির মূল্য ২৫০ টাকা। প্রচ্ছদ ও অংলকরণ করেছেন নাজমুল মাসুম।

বেহুলাবাংলা থেকে এসেছে বড়দের গল্পের বই। বইটির নাম ‘প্রেম জ্বলে ডুবে যাই’ বইটিতে ১২টি গল্প রয়েছে। কয়েকটি গল্প প্রেমের রয়েছে। এ ছাড়াও মুক্তিযুদ্ধ, সামাজিক ও পারিবারিক জীবনের বাস্তবতা নিয়ে গল্পগুলো লেখা হয়েছে। বইটি পাওয়া যাচ্ছে যাচ্ছে বইমেলায় বেহুলাবাংলা ১২৩-১২৩ নম্বর স্টলে । বইটির মূল্য ২০০ টাকা। প্রচ্ছদ করেছেন আল নোমান।

জ্ঞানজ্যোতি প্রকাশনী থেকে এসেছে শিশু-কিশোরদের বাংলাদেশ সম্পর্ক। বইটি নাম ‘ছোটদের জানা-অজানা প্রিয় বাংলাদেশ’। বইটিতে বাংলাদেশের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে ছয়টি গল্প রয়েছে। মেলায় বইটি পাওয়া যাবে রিয়া প্রকাশনীর স্টলে। স্টল নং ৫৮৮। রঙিন বইটির প্রচ্ছদ করেছেন নিয়াজ চৌধুরী তুলি। অংলকরণ করেছেন শাহীনুর আলম শাহীন।

মনন প্রকাশ থেকে এসেছে শিশু-কিশোরদের শিক্ষামূলক গল্পের বই ক্লাসের ফার্স্ট বয় লাস্ট বয়। বইটি দশটি গল্প রয়েছে।  মেলায় পাওয়া যাবে মনন প্রকাশনের ১৩৪-১৩৫ স্টলে । প্রচ্ছদ করেছেন নিয়াজ চৌধুরী তুলি অংলকরণ করেছেন শাহীনুর আলম শাহীন।

টাঙ্গন প্রকাশ থেকে এসেছে শিশু-কিশোরদের গল্পের বই। বইটির নাম দিয়ার বন্ধু টিয়া। বইটিতে একটি গল্পে রয়েছে। মজার গল্প। মেলায় পাওয়া যাবে ৩৯০ নম্বর স্টলে। বইটির প্রচ্ছদ ও অলংকরণ করেছেন শাহীনুর আলম শাহীন।

এছাড়া রণজিৎ সরকারের পূর্বে প্রকাশিত বইগুলো পাওয়া যাচ্ছে মেলাতে। যারা ঘরে বসে বই সংগ্রহ করতে চান তারা রকমারি ডটকমে ১৬২৯৭ যোগাযোগ করতে পারেন।

Print Friendly
User Rating: 0.0 (0 votes)
Sending