ধামরাই’র ধান ক্ষেতে যুবককে কুপিয়ে হত্যা

রাসেল হোসেন, ধামরাই: ঢাকার ধামরাইয়ে শেখ ফরিদ (৪৫) নামে এক যুবককে বাড়ির পাশে ধান ক্ষেতে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ।

নিহত শেখ ফরিদ ধামরাইয়ের চান্দখালী গ্রামের শেখ শাহজাহান মিয়ার ছেলে। সে ভাড়ায় মাইক্রোবাস চালাতেন। বুধবার রাত বারোটার দিকে ধামরাইয়ের চান্দখালি গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

নিহত ফরিদের বাবা জানান, রাত আনুমানিক ১২ টার দিকে আমার মোবাইলে আমার ছেলের নাম্বার থেকে ফোন আসে। ফোন ধরার পর বলে ‘তর ছেলেকে যদি বাঁচাতে চাস তাহলে টাকা পয়সা গয়না-গাটি সব নিয়ে বাড়ির পাসে আস।’

আমি সঙ্গে সঙ্গে দৌড়ে আমার পরিবারে লোক জন নিয়ে যাই।যাওয়ার পর দেখি অজ্ঞাত নামা ৮-১০ জন আমার ছেলেকে মারধর করছে। আমরা এগিয়ে গেলে আমাদেরও রাম দা নিয়ে তাড়া করে। পরে আমরা ওখান থেকে জীবন রক্ষর্থে দৌড় দেই, পরে তারা দৌড়ে পালিয়ে যায়। আমার ছেলের কাছে গিয়ে দেখি আমার ছেলে লাশ হয়ে পরে আছে।

পুলিশ জানায়, নিহত শেখ ফরিদ তার ভাড়ায় চালিত মাইক্রোবাসটি গ্যারেজে পার্কিং করে মোটরসাইকেলযোগে বাড়ি যাবার পথে অজ্ঞাতপরিচয় এক দল দুর্বৃত্ত তাকে ছুরিকাঘাতে ও কুপিয়ে হত্যা করে। পড়ে তার ব্যবহৃত মোটরসাইকেলসহ তাকে মৃত অবস্থায় সড়কের পাশে ফেলে পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে থানা পুলিশ রাতেই নিহতের মরদেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করে।

এই ঘটনায় ধামরাই থানায় একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে জানিয়ে পুলিশ বলছে ঘটনায় জড়িতদের ধরতে চেষ্টা চালানো হচ্ছে।   এছাড়া প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে পূর্ব কোন শত্রুতার জের ধরে তাকে হত্যা করা হয়েছে।

নিহত শেখ ফরিদের মাইক্রোবাসটি ধামরাই থানা পুলিশ বিভিন্ন সময় প্রয়োজনে ভাড়া নিয়ে ব্যবহার করতো।

 

 

 

 

 

Print Friendly
User Rating: 0.0 (0 votes)
Sending